Skip to main content

ঐক্যফ্রন্টের কলকাঠি নাড়বেন তারেক রহমান

  • আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের । ফাইল ছবি
    সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের

জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের বিষয়ে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, ড. কামাল হোসেনের টার্গেট সম্ভবত ক্ষমতায় যাওয়া নয়, তাঁর টার্গেট হলো শেখ হাসিনাকে ছলে-বলে যেভাবেই হোক, ক্ষমতার মঞ্চ থেকে হটানো। তিনি বলেন, বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের অঙ্গুলি হেলনেই চলবে ঐক্যফ্রন্ট। এই জোটের কলকাঠি নাড়বেন তারেক রহমান। 

বনানীতে আজ মঙ্গলবার বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষের (বিআরটিএ) নতুন ভবন পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের এ কথা বলেন।

ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘শেখ হাসিনাকে হটানোর জন্য তারেক জিয়ার নেতৃত্ব মেনে নিতেও ড. কামাল হোসেনের আসলে কোনো আপত্তি আছে বলে মনে করি না। কারণ এই ধরনের ঐক্যটা আসলে কে চালাবে? মূল দল হচ্ছে বিএনপি। আর বিএনপি চালায় কে?’ তিনি বলেন, তারেক রহমানের অঙ্গুলি হেলনেই চলবে এটা। লন্ডন থেকে দলেরও নেতৃত্ব দিচ্ছেন এবং এই জোটেরও নেতৃত্ব, কলকাঠি নাড়বেন তারেক রহমান। সেখান ড. কামাল হোসেন এটা নিজে ভালো করেই জানেন।

সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেন, এই জোট থেকে ইতিমধ্যে বদরুদ্দোজা চৌধুরীকে বের করে দেওয়া হয়েছে। এ ধরনের ঐক্য তেলে আর জলে মেশানোর অপচেষ্টা মাত্র, এই অপচেষ্টা ব্যর্থ হবে। তিনি আরও বলেন, ড. কামাল হোসেন গণফোরাম করেও সাড়া পাননি, এখানে বিএনপির সঙ্গে ঐক্য করেও সাড়া পাবেন না।

নির্বাচন কমিশনের (ইসি) বৈঠক থেকে একজন নির্বাচন কমিশনার বৈঠক বর্জন করার বিষয়টি দৃষ্টি আকর্ষণ করলে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘তাঁকেও মহামান্য রাষ্ট্রপতি সার্চ কমিটির মাধ্যমে নিয়োগ দিয়েছেন। বিএনপির কথামতোই করা হয়েছে। আর নোট অব ডিসেন্ট যে কেউ দিতে পারেন। নিরাপত্তা পরিষদে পাঁচজন সদস্য আছেন, এর মধ্যে একজন বিরোধিতা করতেই পারেন।’ তিনি বলেন, অধিকাংশ যা বলবে তা-ই বৈঠকের সিদ্ধান্ত হবে, এটাই স্বাভাবিক। আর কেউ বিরোধিতা করবে, এটাই গণতন্ত্র। এটা কোনো প্রতিবন্ধকতা নয়। আর এটার জন্য নির্বাচন কমিশন পুনর্গঠনের দাবি কোনো যৌক্তিক কথা নয়।